শ্রীমঙ্গলে মাদ্রাসা শিক্ষকের বিদায় সংবর্ধনায় হাজারো মানুষের ঢল

শ্রীমঙ্গল প্রতিনিধিঃ

মৌলভীবাজার জেলায় শিক্ষা ক্ষেত্রে বার বার শ্রেষ্ঠত্ব অর্জনকারী শ্রীমঙ্গলের ঐতিহ্যবাহী দ্বীনি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান
ডোবা গাঁও বাহরুল উলুম দাখিল মাদ্রাসার সুপারিনটেনডেন্ট আলহাজ্ব আ. ছ. ম মুজিবুর রহমান আল মাদানী’র অবসরকালীন বিদায় সংবর্ধনা ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
বিদায় লগ্নে প্রিয় মানুষকে শুভেচ্ছা জানাতে শুক্রবার (৫ আগষ্ট) বিকেলে উপজেলার সিন্দুরখান ইউনিয়নে ডোবা গাঁও বাহরুল উলুম দাখিল মাদ্রাসা মাঠে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক, সহকর্মী, প্রাক্তন ও বর্তমান শিক্ষার্থী এবং এলাকাবাসীসহ প্রায় ৩ হাজার মানুষ অংশ নেন এই বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে।

ডোবাগাঁও বাহরুল উলুম দাখিল মাদ্রাসার ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি খুরশেদ আনোয়ার এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, অনুমিত হিসাব সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটির সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা উপাধ্যক্ষ ড. মো. আব্দুস শহীদ এমপি।

এ সময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপজেলা চেয়ারম্যান ভানু লাল রায়, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আলী রাজীব মাহমুদ মিঠুন, দিনাজপুর হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোহাম্মদ সাইফউদ্দীন দুরুদ, উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অর্ধেন্দু কুমার দেব, সিন্দুরখান ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ইয়াসিন আরাফাত রবিন, মৌলভীবাজার টাউন কামিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মুফতি মাও: শামসুল ইসলাম, শ্রীমঙ্গল উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা দিলীপ কুমার বর্ধন উপস্থিত ছিলেন।
প্রিয় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে অবসর জনিত বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে মাদ্রাসার সুপারিনটেনডেন্ট আলহাজ্ব আ. ছ. ম মুজিবুর রহমান আল মাদানী কান্নায় ভেঙে পড়েন। তিনি তার বক্তব্যে বলেন এই প্রতিষ্ঠানকে আমি আমার সন্তানদের মতো লালন করেছি। প্রতিষ্ঠানের প্রত্যেকটা শিক্ষার্থীকে মনে করেছি নিজের সন্তানের মত। তিনি বলেন, জীবনের সবটুকু দিয়ে চেষ্টা করেছি ছাত্র-ছাত্রীদের ভাল শিক্ষা দিতে এবং মাদ্রাসার মর্যাদা উজ্জ্বল করতে।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে আব্দুস শহীদ এমপি বলেন, আমরা যাকে সংবর্ধনা দিতে এসেছি তিনি শিক্ষার আলো ছড়িয়ে শ্রীমঙ্গলকে উজ্জ্বল করেছে। বিদায়ী সুপারিনটেনডেন্ট আলহাজ্ব আ. ছ. ম মুজিবুর রহমান আল মাদানীর সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করে আব্দুস শহীদ এমপি অত্র শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের উত্তরোত্তর সমৃদ্ধি কামনা করেন। পাশাপাশি তিনি এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের উন্নয়নে সব সময় পাশে থাকার আশ্বাস প্রদান করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.