শ্রীমঙ্গলে মাটি ধসে চার চা শ্রমিকের মৃত্যু, আব্দুস শহীদ এমপির পরিদর্শন

স্টাফ রিপোর্টারঃ

মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গল উপজেলাধীন কালীঘাট ইউনিয়নের লাখাইছড়া চা বাগানে পাহাড়ের সুরঙ্গ থেকে ঘর লেপার জন্য মাটি কুড়তে গিয়ে পাহাড়ধসে চার নারী চা শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে।

শুক্রবার (১৯ আগস্ট) বেলা সাড়ে ১১টায় এই ঘটনা ঘটে। ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক চারজন’কে মৃত ঘোষণা করেন।
মৃত ব্যক্তিরা হলেন, লাখাইছড়া চা বাগানের নারী চা শ্রমিক অরুন মাহালী’র স্ত্রী রাধামনি মাহালী (২৫), রিপন ভৌমিকের স্ত্রী পূর্ণিমা ভৌমিক (২৫), স্বপন ভৌমিকের স্ত্রী হিরা রানী ভৌমিক (৩৫), এবং সুনীল ভৌমিকের স্ত্রী সুকন্তলা ভৌমিক (৪)

এই ঘটনার খবর পেয়ে শ্রীমঙ্গল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন, স্থানীয় সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা উপাধ্যক্ষ ড. মো. আব্দুস শহীদ,
উপজেলা চেয়ারম্যান ভানুলাল রায়, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আলী রাজিব মাহমুদ মিঠুন, শ্রীমঙ্গল থানার অফিসার ইনচার্জ মো. শামীম অর রশিদ তালুকদার, কালীঘাট ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রাণেশ গোয়ালা প্রমুখ।

মর্মান্তিক এই ঘটনায় ওই এলাকা জুড়ে এখন শোকের ছায়া নেমে এসেছে।
মৃত ব্যক্তিদের সৎকার কাজের জন্য আব্দুস শহীদ এমপির পক্ষ থেকে তাৎক্ষণিক ২০ হাজার টাকা আর্থিক সহায়তা দেওয়া হয়েছে।

ঘটনাটি সত্যিই বেদনাদায়ক
শ্রীমঙ্গল উপজেলার লাখাইছড়া চা বাগানে ঘর লেপার জন্য মাটি খুঁড়তে গিয়ে পাহাড় ধসে মাটিচাপায় চার নারী চা শ্রমিকের মৃত্যুর ঘটনা।

ঘটনাস্থল পরিদর্শন শেষে আব্দুস শহিদ এমপি, সাংবাদিকদের বলেন, কর্মক্ষেত্রে সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। যেহেতু শ্রীমঙ্গল পাহাড় অধ্যুষিত এলাকা। তিনি মৃত ব্যক্তিদের পরিবারের প্রতি শোক ও সমবেদনা জানিয়ে বলেন এ ঘটনায় আমরা ব্যথিত এবং মর্মাহত। সরকারের পক্ষ থেকে শোকাহত পরিবারের সবাইকে আর্থিক সহায়তা দেওয়া ব্যবস্থা করা হবে। এছারা ওই
সব এলাকায় যারা বসবাস করেন তাদের সবাইকে আরো সতর্ক থাকার আহ্বান জানান উপাধ্যক্ষ আব্দুস শহীদ এম.পি।

এই নির্মম ঘটনায় ওই এলাকা জুড়ে এখন শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.