জুড়ীতে নিখোঁজের ৩৪ ঘন্টা পর ভেসে উঠল চা শ্রমিকের লাশ

মোঃ জাকির হোসেন (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধিঃ

মৌলভীবাজার জেলার জুড়ী উপজেলায় বন্যার পানিতে ডুবে রণ রিকমন (৪০) নামের এক ব্যক্তি বুধবার রাত থেকে নিখোঁজ ছিলেন। অবশেষে নিখোঁজের ৩৪ ঘন্টা পর শুক্রবার (২৪ জুন) সকাল ৭টায় ভেসে উঠল এ চা শ্রমিকের লাশ।
এর আগে বৃহস্পতিবার (২৩ জুন) কুলাউড়া ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা তাঁর সন্ধানে উদ্ধার অভিযান পরিচালনা করে। তারা উদ্ধারে ব্যর্থ হয়ে সিলেটে ডুবরী দলকে খবর দিলে বেলা তিনটায় দিকে উদ্ধারে নামেন ডুবরী দল। পরে সন্ধ্যা পর্যন্ত চেষ্টা চালিয়ে উদ্ধারকারী দল অভিযান সমাপ্ত করে চলে যায়।
রণের বাড়ি উপজেলার ধমাই চা-বাগানের নতুন টিলা এলাকায়। তিনি ওই বাগানের শ্রমিক।
স্থানীয় লোকজন ও স্বজনদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, অতিবৃষ্টি ও উজান থেকে নামা পাহাড়ি ঢলে ধামাই বাগানের বিভিন্ন নিচু এলাকা প্লাবিত হয়ে গেছে। রণদের বাড়িতে ঢোকার রাস্তায় কোমরসমান পানি। আর রাস্তার দুই পাশের নিচু জমিতে ১০ থেকে ১২ ফুট পানি। রণ বুধবার রাত নয়টার দিকে স্থানীয় একটি দোকান থেকে নিত্যপ্রয়োজনীয় কিছু জিনিস কিনে বাড়ি ফিরছিলেন। কিন্তু তিনি নৌকা না পেয়ে হেঁটে রওনা দেন। একপর্যায়ে বাড়ির সামনে তিনি ডুবে যান। এ সময় চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন সাঁতরে ঘটনাস্থলে গিয়ে খোঁজাখুঁজি করেও তাঁর সন্ধান পাননি।
কুলাউড়া ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের দায়িত্বে থাকা কর্মকর্তা সোলায়মান হোসেন বলেন, নিখোঁজ ব্যক্তির সন্ধানে আমাদের দুটি টিম ৬ ঘন্টা অভিযান চালিয়ে উদ্ধার করতে ব্যর্থ হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.