সততার পরিচয় দিলেন শ্রীমঙ্গলের মেয়ে সুমি, ভুলে আশা বিকাশে ৫০ হাজার টাকা ফেরত

সততার পরিচয় দিলেন শ্রীমঙ্গলের মেয়ে সুমি

মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে হবিগঞ্জ রোড সুরমা ভ্যালি বাসিন্দা গতকাল ১৯ জুন বিকেলের দিকে ওনার ফোন নাম্বারে বিকাশে ভুলক্রমে ৫০ হাজার টাকা চলে আসে।

সাথে সাথে উনার ভগ্নিপতি সাপ্তাহিক হলি সিলেট পত্রিকার নির্বাহী সম্পাদক জনাব জহিরুল ইসলাম কে অবগত করেন এবং জনাব জহিরুল ইসলাম কিছুক্ষণ পর সংবাদকর্মী মোহাম্মদ আমজাদ হোসেনের বাচ্চু কে সিলেট থেকে ফোন করে বিষয়টি অবগত করেন এবং বলেন প্রয়োজনে শ্রীমঙ্গল থানা পুলিশকে জানানোর জন্য যে ভুলে আমাদের মোবাইলে ৫০ হাজার টাকা চলে আসে।

আমজাদ হোসেন বাচ্চু বলেন অপেক্ষা করার জন্য যারা ভুল করে টাকা পাঠিয়েছে হয়তো তারা এই নাম্বারে যোগাযোগ করবে।

আজ ২০ শে জুন সোমবার সৌদি আরব প্রবাসী আব্দুস সালাম নামে এক ব্যক্তি ওই ফোনে সোহানা আক্তার সুমির নাম্বরে যোগাযোগ করেন।

এবং তিনি আব্দুস সালাম সৌদি আরব প্রবাসী বলেন উজানী নগর গ্রামের জৈন্তাপুর উপজেলায় উনার ছেলে সোহাগ আহমেদ এর কাছে টাকা পাঠানোর কথা ছিল ভুলক্রমে সোহানা আক্তার সুমি নাম্বারে চলে আসে তখন সোহানা আক্তার সুমি তার ভগ্নিপতির নাম্বার দিয়ে বলেন ওই নাম্বারে আপনারা যোগাযোগ করেন তখন জহিরুল ইসলাম এর সাথে যোগাযোগ করলে তিনি জানান আপনাদের প্রমাণপত্র নিয়ে শ্রীমঙ্গল ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক মোঃ কামাল হোসেন সাহেবের অফিসে চলে যান সেখানে আমার ছোট বোন এসে কামাল হোসেন ও সংবাদকর্মী মোঃ আমজাদ হোসেনের সামনে আপনাদের প্রমাণপত্র দেখিয়ে টাকা নিয়ে আসবেন।

কথা মতে আব্দুস সালাম সৌদী আরব প্রবাসী উনার ছেলে সোহাগ আহমেদ তিন-চারজন সহপাঠী নিয়া জৈন্তাপুর থেকে শ্রীমঙ্গলে আসেন এবং আজ মোঃ কামাল হোসেন এবং সংবাদকর্মী মোহাম্মদ আমজাদ হোসেন বাচ্চু সহ উনাদের টাকা বুঝাইয়া দেয়।

ধন্যবাদ জানান সোহানা আক্তার সুমি কে তার সততা পরিচয় দিয়েছে আজ।

সোহানা আক্তার সুমি বলেন আমার মোবাইলে গতকাল ৫০ হাজার টাকা আসার পর থেকে আমি অনেক টেনশনে ছিলাম আজকে উনাদের টাকা বুঝিয়ে দিয়ে নিজেকে অনেকটাই হালকা লাগছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.