মাদক মুক্ত সমাজ গড়তে পারলেই দেশ উন্নত করা সম্ভব- জেলা প্রশাসক মীর নাহিদ আহসান

মাদক মুক্ত সমাজ গড়তে পারলেই দেশ উন্নত করা
সম্ভব- জেলা প্রশাসক মীর নাহিদ আহসান

আব্দুস শুক্কুর, শ্রীমঙ্গল (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি:

শ্রীমঙ্গলে মাদকদ্রব্য অপব্যবহার রোধকল্পে সামাজিক আন্দোলন গড়ে তোলার লক্ষ্যে সমন্বিত কর্মপরিকল্পনা (Comprehensive Action plan) প্রণয়নে দিনব্যাপী
কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মঙ্গলবার(১৪জুন) সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত শহরের জেলা পরিষদ অডিটোরিয়ামের হল রুমে এ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়।

উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর এর সহযোগিতায় উপজেলার বিভিন্ন সেক্টরের কর্মকর্তাদের উপস্থিতে ১৬টি গ্রুপে ভাগ করে মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার রোধকল্পে বিভিন্ন মতামত তুলে ধরেন।

শ্রীমঙ্গল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আলী রাজিব মাহমুদ মিঠুন এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন- মৌলভীবাজারে জেলা প্রশাসক মীর নাহিদ আহসান।

বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মো. সাজ্জাদ হোসেন চৌধুরী, মৌলভীবাজার জেলা মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের উপ পরিচালক মো. হাবীব তৌহিদ ইমাম, শ্রীমঙ্গল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শামীম অর রশীদ তালুকদার।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক মীর নাহিদ আহসান বলেন, শিক্ষিত জাতি ছাড়া দেশকে সামনের দিকে এগিয়ে নেয়া কিছুতেই সম্ভব নয়। তাই শিক্ষিত জাতি গড়তে হলে সর্বপ্রথম আমাদের মাদকমুক্ত সমাজ বা দেশ গড়তে হবে। তিনি বলেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মাদক নির্মূলে নানামুখী কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। আমরা সবাইকে নিয়ে সেসব কর্মসূচি বাস্তবায়ন করছি।
সবাইকে একসাথে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে মাদকমুক্ত সমাজ গড়ার আহ্বান জানান জেলা প্রশাসক মীর নাহিদ আহসান।

সভায় সহকারী কমিশনার (ভূমি) সন্দ্বীপ তালুকদার, শ্রীমঙ্গল প্রেসক্লাবের সভাপতি বিশ্বজ্যোতি চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ ইমাম হোসেন সোহেল ছাড়াও সকল ইউনিয়নের ইউপি সদস্যদের নিয়ে উপস্থিত ছিলেন, শ্রীমঙ্গল সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান দুদু মিয়া, কালাপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মতলিব, রাজঘাট ইউনিয়নের চেয়ারম্যান বিজয় বুনার্জী, ভূনবীর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আব্দুর রশিদ তালুকদার, আশিদ্রোন ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রনেন্দ্র প্রসাদ বর্ধন জহর, সিন্দুরখান ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ইয়াসিন আরাফাত রবিন, মির্জাপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মিছলু আহমেদ চৌধুরী, কালীঘাট ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রানেশ গোয়ালা, সাতগাঁও ইউনিয়নের চেয়ারম্যান দেবাশীষ
দেব রাকু প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.