বড়লেখা সীমান্তে ৭ রোহিঙ্গা আটক

শাহরিয়ার শাকিল, বড়লেখা মৌলভীবাজার প্রতিনিধি

মৌলভীবাজার জেলার বড়লেখায় ভারতে যাওয়ার সময় সীমান্ত এলাকা থেকে আটক হওয়া ৭ রোহিঙ্গাকে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে পাঠানো হয়েছে।
বৃহস্পতিবার (২৫ আগস্ট) দুপুরে তাদের উখিয়ার কুতুপালং থ্যাংখালী (এফডিএমএন) ক্যাম্পে পাঠানো হয়েছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।
এর আগে বুধবার (২৪ আগস্ট) সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে উপজেলার উত্তর শাহবাজপুর ইউনিয়নের কুমারশাইল সীমান্ত এলাকা দিয়ে ভারতে যাওয়ার সময় কুমারশাইল মাদ্রাসার পাশ থেকে তাদের আটক করেন স্থানীয় লোকজন। পরে তাদের লাতু বিজিবি (বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ) এর তুলে দেওয়া হয়। ওইদিন সন্ধ্যায় তাদের পুলিশের কাছে হস্তান্তর করে বিজিবি।
আটক রোহিঙ্গারা হলেন, মো. শফিকুল (১৯), সমিন আরা (১৮), রুজিনা আক্তার (১৭), শুকতারা (১৫), ফাতেমা খাতুন (১৭), মল্লিকা (১৫) ও আছিয়া (১৬)।
সূত্র জানায়, আটককৃত রোহিঙ্গারা দালালের মাধ্যমে ভারতে যাওয়ার জন্য কক্সবাজারের উখিয়ার কুতুপালং থ্যাংখালী (এফডিএমএন) ক্যা¤প থেকে বড়লেখায় এসেছিলেন।
থানা পুলিশ, বিজিবি ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গত বুধবার (২৪ আগস্ট) সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে বড়লেখা উপজেলার উত্তর শাহবাজপুর ইউনিয়নের কুমারশাইল মাদ্রাসার পাশ থেকে ওই সাত রোহিঙ্গাকে আটক করেন স্থানীয় লোকজন। পরে স্থানীয়রা তাদের লাতু বিজিবির হাতে তুলে দেন। বিজিবির প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে রোহিঙ্গারা কুমারশাইল সীমান্ত দিয়ে ভারতে যাওয়ার চেষ্টা করেছিল বলে স্বীকার করেছে। পরে ওইদিন সন্ধ্যায় তাদের পুলিশের কাছে হস্তান্তর করে বিজিবি।
বড়লেখা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাহাঙ্গীর হোসেন সরদার বলেন, কুমারশাইল এলাকা থেকে সাত রোহিঙ্গাকে আটকের পর বিজিবি থানায় হস্তান্তর করেছে। বিজিবির প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে রোহিঙ্গারা কুমারশাইল সীমান্ত দিয়ে ভারতে যাওয়ার চেষ্টা করেছে বলে স্বীকার করেছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে তাদের পুলিশ স্কটের মাধ্যমে উখিয়ার কুতুপালং থ্যাংখালী (এফডিএমএন) ক্যাম্পে পাঠানো হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.